PrintPrintEmail this PageEmail this Page

বিমা-প্রস্তাব নির্দেশে বিমা-কৃত গ্রাহক দ্বারা প্রদত্ত তথ্যের ভিত্তিতে সমস্ত বিমা চুক্তি তৈরি হয়। এই বিমা-প্রস্তাব নিদর্শই বিমা-চুক্তির ভিত্তি হিসাবে ব্যবহৃত হয়।

বিমাপত্রের নানা ধরনের প্রকৃতির দিক থেকে, স্বতন্ত্র ব্যক্তির বিমাপত্রগুলিতে কিছু বিষয় স্পষ্ট করে বলা হয়, উপরে লিখিত বিষয়ের সাথে, নিম্নলিখিত তেমন কিছু বিষয়ের তালিকাও দেওয়া হল: (অনুগ্রহ করে মনে রাখবেন যে নথিগুলির কথা উল্লেখ করা হচ্ছে, সেইগুলি সূচনাত্মক এবং দাবি নিষ্পত্তি জনিত নানা পরিস্থিতি ভিত্তিক, যে কোনো সময়ে দরকার পড়লে বিমাকারী সংস্থা অতিরিক্ত কোনো নথি জমা করার অনুরোধ করতেই পারে।)

PrintPrintEmail this PageEmail this Page

দুই রকমভাবে আপনি স্বাস্থ্য-বিমা সংক্রান্ত দাবির আবেদন করতে পারেন। হয় আপনি বিনা-নগদে চিকিৎসার দাবি জানাতে পারেন বা পরে আপনার দাবির ব্যয়পূরণের আবেদন করতে পারেন। নীচে এইসবের পদ্ধতিগত অনুসরণের দিকগুলি নিয়ে আলোচনা করা হল:

বিনা-নগদে চিকিৎসার দাবি শুধুমাত্র TPA-সংস্থার নেটওয়ার্ক ভুক্ত হাসপাতালে ভর্তি হলেই উপলভ্য।   আপনি হাসপাতালে ভর্তি হবার আগেই আমাদের TPA-সংস্থার কাছ থেকে বর্তমানে কোনো বিশেষ হাসপাতালের নেটওয়ার্ক-ভুক্তির সঠিক অবস্থান কী, সেই বিষয়টি বুঝে নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

এই সুবিধার অধীনে ঐ নেটওয়ার্ক-ভুক্ত হাসপাতালের কর্মীরাই আপনার বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধ/ দাবি সংক্রান্ত সকল আনুষ্ঠানিক পদ্ধতিগুলি সম্পন্ন করার কাজে আপনাকে সাহায্য করবে।   আপনি আমাদের তৃতীয় পক্ষের প্রশাসকের সঙ্গেও হেল্প-লাইন ফোন-নম্বরের মাধ্যমে, আপনার স্বাস্থ্য-কার্ডের উপরে লেখা সদস্যপদের ক্রম-সংখ্যাটি উল্লেখ করে, এই বিষয়ে কথা বলে জেনে নিতে পারেন।

বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধ/ দাবি দুই প্রকার হয়:

  • আপৎকালীন ভর্তির কারণে বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধ/ দাবির প্রক্রিয়াকরণ
  • পরিকল্পনাকৃত ভর্তির কারণে বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধ/ দাবির প্রক্রিয়াকরণ

আপৎকালীন ভর্তির কারণে বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধ/ দাবির প্রক্রিয়াকরণ:

  • পর্যায় 1: নেটওয়ার্ক-ভুক্ত হাসপাতালের ক্ষেত্রে, ভর্তির সময়ে, নির্দিষ্ট টোল ফ্রি ফোন নং-এর মাধ্যমে তৃতীয় পক্ষের প্রশাসককে (TPA) জানান। এই সময়ে অনুগ্রহ করে, আপনার স্বাস্থ্য-কার্ডের উপরে লেখা সদস্যপদের ক্রম-সংখ্যাটি উল্লেখ করবেন  
  • পর্যায় 2: হাসপাতালের বিমা হেল্প-ডেস্ক থেকে প্রাপ্ত বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধের নিদর্শটি যথাযথভাবে পূরণ করে আপনার চিকিৎসককে দিয়ে স্বাক্ষর করিয়ে সেটি শংসিত করে নিন
  • পর্যায় 3: যথাযথভাবে পূরণ করা বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধের নিদর্শটি সহায়ক চিকিৎসা সংক্রান্ত রেকর্ড সহ TPA–কে ফ্যাক্স করে দিন
  • পর্যায় 4: এই নথিটি TPA-এর দ্বারা পুনঃপরীক্ষিত হবার পর তাদের সিদ্ধান্ত হাসপাতালকে জানাবে। বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি TPA একবারেই অনুমোদন করে দিতে পারে বা প্রয়োজনে, আরও কিছু নথি চেয়ে পাঠাতে পারে।
  • পর্যায় 5: বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি TPA অনুমোদন করার পর, (বিমাপত্রের সীমাবদ্ধতানুযায়ী) হাসপাতাল সমস্ত চিকিৎসার রসিদগুলি সরাসরি তাদের কাছেই পাঠাতে শুরু করবে। টেলিফোন চার্জ, খাদ্য, আয়ার চার্জ ইত্যাদি অস্বীকার্য পরিমাণ অর্থ আপনাকেই মেটাতে হবে 
  • পর্যায় 6: বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি TPA অনুমোদন না করলে, অনুগ্রহ করে হাসপাতালের রসিদ অনুযায়ী প্রদেয় অর্থ আপনিই প্রথমে হাসপাতালে জমা দিয়ে দিন এবং এরপর ব্যয়পূরণের জন্য আবেদন করুন। বিমাপত্রের শর্তাবলী অনুসারে দাবির নিষ্পত্তিকরণ সম্পূর্ণ হবে  

দাবি মতো সমস্ত নথিপত্র পাওয়ার পর বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি আমাদের TPA সর্বাধিক 24 ঘণ্টার মধ্যে অনুমোদনের সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকে।

পরিকল্পনাকৃত ভর্তির কারণে বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধ/ দাবির প্রক্রিয়াকরণ

  • পর্যায় 1: চিকিৎসার জন্য আমাদের নেটওয়ার্ক-ভুক্ত হাসপাতালের তালিকা থেকে যে কোনো একটি হাসপাতাল বেছে নিন 
  • পর্যায় 2: হাসপাতালে ভর্তির 3 দিন আগে নির্দিষ্ট টোল ফ্রি ফোন নং-এর মাধ্যমে আপনার স্বাস্থ্য-কার্ডের উপরে লেখা সদস্যপদের ক্রম-সংখ্যাটি উল্লেখ করে তৃতীয় পক্ষের প্রশাসককে (TPA) আপনার ভর্তির তথ্যটি জানান 
  • পর্যায় 3: হাসপাতালের বিমা-হেল্প-ডেস্ক থেকে প্রাপ্ত বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধের নিদর্শটি যথাযথভাবে পূরণ করে আপনার চিকিৎসককে দিয়ে স্বাক্ষর করিয়ে সেটি শংসিত করে নিন 
  • পর্যায় 4: যথাযথভাবে পূরণ করা বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধের নিদর্শটি সহায়ক চিকিৎসা সংক্রান্ত রেকর্ড সহ TPA–কে ফ্যাক্স করে দিন
  • পর্যায় 5: এই নথিটি TPA-এর দ্বারা পুনঃপরীক্ষিত হবার পর তাদের সিদ্ধান্ত হাসপাতালকে জানাবে। বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি TPA অনুমোদন করে দিতেও পারে বা প্রয়োজনে, আরও কিছু নথি চেয়ে পাঠাতে পারে
  • পর্যায় 6: বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি TPA অনুমোদন করার পর, (বিমাপত্রের সীমাবদ্ধতানুযায়ী)হাসপাতাল সমস্ত চিকিৎসার রসিদগুলি সরাসরি তাদের কাছেই পাঠাতে শুরু করবে। টেলিফোন চার্জ, খাদ্য, আয়ার চার্জ ইত্যাদি অস্বীকার্য পরিমাণ অর্থ আপনাকেই মেটাতে হবে
  • পর্যায় 7: বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি TPA অনুমোদন না করলে, অনুগ্রহ করে হাসপাতালের রসিদ অনুযায়ী প্রদেয় অর্থ আপনিই প্রথমে হাসপাতালে জমা দিয়ে দিন এবং এরপর ব্যয়পূরণের জন্য আবেদন করুন। বিমাপত্রের শর্তাবলী অনুসারে দাবির নিষ্পত্তিকরণ সম্পূর্ণ হবে।

দাবি মতো সমস্ত নথিপত্র পাওয়ার পর বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধটি আমাদের TPA সর্বাধিক 24 ঘণ্টার মধ্যে অনুমোদনের সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকে।

ব্যয়পূরণের জন্য দাবির নিষ্পত্তির প্রক্রিয়াকরণ

নেটওয়ার্ক-ভুক্ত হাসপাতালের তালিকানুযায়ী কোনো হাসপাতালে ভর্তি হয়েও আপনি বিনা-নগদে চিকিৎসার অনুরোধের সুবিধা না নিয়ে থাকলে অথবা আপনি নেটওয়ার্ক-ভুক্ত নয় এমন কোনো হাসপাতালে আপনার চিকিৎসা করান সেই ক্ষেত্রে আপনি ব্যয়পূরণের জন্য আবেদন করতে আপনার চিকিৎসার সমস্ত মূল নথি জমা দিতে পারেন।

  • পর্যায় 1: হাসপাতালে ভর্তি হবার পরেই যত দ্রুত সম্ভব বা দেরী হলেও হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাবার 7 দিনের মধ্যে অবশ্যই এই 1800 103 5499 টোল-নম্বরে ফোন করে IFFCO-Tokio কে আপনার হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসার তথ্য জানান। এই সময়ে অনুগ্রহ করে, আপনার বিমাপত্রে লেখা শংসাপত্রের ক্রম-সংখ্যাটি উল্লেখ করবেন।
  • পর্যায় 2: প্রয়োজনীয় চিকিৎসা করান এবং হাসপাতালের রসিদ অনুযায়ী প্রদেয় অর্থ আপনিই প্রথমে হাসপাতালে জমা দিয়ে দিন এবং এরপর ব্যয়পূরণের জন্য দাবির আবেদন করুন।
  • পর্যায় 3: আমাদের ওয়েবসাইট থেকে এই সম্বন্ধীয় দাবির নিদর্শটি ডাউনলোড করুন বা আমাদের সহায়ক ফোন-সেবা কেন্দ্রে এটি পাওয়ার জন্য অনুরোধ পাঠান।

দাবির নিদর্শ ও নথিপত্রগুলি IFFCO TOKIO –এর স্থানীয় কার্যালয়ের ঠিকানায়ও জমা দেওয়া যাবে, ঠিকানা জানা না থাকলে এই 1800 103 5499 টোল-নম্বরে ফোন করলে সেটি পাওয়া যাবে।

দাবির নিষ্পত্তিকরণ প্রক্রিয়াকরণে যে কোনো প্রকার উপায়-নির্দেশ বা সাহায্যের প্রয়োজনেও, আপনি এই 1800 103 5499 টোল-নম্বরে ফোন করুন।

নথিপত্র পরীক্ষা-তালিকা

ব্যয়পূরণের জন্য দাবির আবেদন করতে কিছু দরকারী নথিপত্র জমা দিতে হবে – চিকিৎসকের স্বাক্ষরিত শংসাপত্র সহ সঠিকভাবে পূরণ করা দাবির নিদর্শ 

  • হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার সারার্থ
  • সমস্ত রসিদ
  • চিকিৎসকের নির্দেশ-পত্র
  • অগ্রিম এবং চূড়ান্ত রসিদসমূহ
  • রোগ-নির্ণয় পরীক্ষাগুলির রিপোর্ট, এক্স-রে, স্ক্যান এবং ECG সহ অন্যান্য ফিল্ম

প্রয়োজনে দাবি-প্রক্রিয়াকরণে নিযুক্ত দল উপরে উল্লিখিত নথিপত্র ছাড়া এরপরেও আরও নথিপত্র চাইতে পারে।

অনুগ্রহ করে মনে রাখুন:

  • সমস্ত প্রয়োজনীয় নথিপত্র পুনঃপরীক্ষা করার পর, চাইলে অতিরিক্ত নথি/তথ্য এই সব কিছু পাবার পর তবেই দাবির নিষ্পত্তিকরণ প্রক্রিয়াকরণ করা হবে
  • দাবির অনুরোধ স্বীকার করা হলে আপনার কাছে চেক পাঠানো হবে। তা না হলে এই আবেদন প্রত্যাখ্যানের চিঠিও আপনাকে পাঠানো হবে
  • দাবি মতো সমস্ত নথিপত্র পাওয়ার পর ব্যয়পূরণ সম্বন্ধীয় দাবির নিষ্পত্তিকরণের প্রক্রিয়াকরণে সর্বাধিক 20 দিনের মতো সময় নিয়ে থাকে।

দাবির অর্থ-প্রদান

  • এই বিমাপত্রের অধীনে সমস্ত দাবি ভারতীয় মুদ্রায় অর্থ-প্রদানযোগ্য। এই বিমার উদ্দেশ্য পূরণের জন্য সমস্ত ধরনের চিকিৎসা কেবলমাত্র ভারতেই সম্পন্ন হতে হবে।
  • এই বিমাপত্রের অধীনে অর্থ-প্রদানকৃত বা অর্থ-প্রদানযোগ্য মোট যোগফল পরিমাণের ক্ষেত্রে সুদ/ জরিমানা বাবদ কোনো অর্থপ্রদান করতে IFFCO TOKIO দায়ী থাকবে না যদি না সেটি IRDA নিয়ম-বিধি দ্বারা প্রদান-সম্মত হয়।
  • দাবির অনুরোধ স্বীকার করা হলে দাবির নিষ্পত্তিকরণের অর্থ-প্রদানের সময়ে কোনো কারণে প্রস্তাবক বেঁচে না থাকলে ওই পরিমাণ অর্থ প্রস্তাবকের আইনি উত্তরাধিকারীকে প্রদান করা হবে।

PrintPrintEmail this PageEmail this Page

সমস্ত বীমা চুক্তিই বিমাকারীর প্রস্তাব ফর্মে দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে। প্রস্তাব ফর্মটি বীমা চুক্তির বুনিয়াদ গঠন করে।

কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয়, যা আপনাকে ক্লেম/দাবী প্রক্রিয়ায় সহায়তা করবে।

  • ক্ষয়ক্ষতি বীমাসংস্থাকে তৎক্ষণাৎ জানাতে হবে।
  • ক্লেম জ্ঞাপনের রসিদ পাওয়ার পর বীমাসংস্থা ক্লেম ফর্ম পাঠাবে
  • ক্লেম ফর্মটি পূরণ করে আনুমানিক ক্ষয়ক্ষতির অঙ্কের সঙ্গে বীমাসংস্থায় জমা করুন। ইহা বাঞ্ছনীয় যে পদবিভাগ করে আলাদা আলাদা মুল্যের সঙ্গে আনুমানিক হিসাবটি জমা করুন।
  • বীমা সংস্থা ক্ষতির পরিমাণ বোঝার জন্য ক্ষতিগ্রস্ত বস্তুর নিরীক্ষা করার ব্যবস্থা করবে। বৃহত্তর ক্ষতির ক্ষেত্রে, একজন অনুমতিপ্রাপ্ত বিশেষজ্ঞ পরিমাপক পাঠানো হয়।
  • ক্ষতির পরিমাণ প্রমাণ করার জন্য বীমাকারীকে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দিতে হয়।
  • যদি ক্ষতির কারণ সংস্থাপিত না হয়ে থাকে, বীমাকারীকে প্রমাণ করতে হয় যে ক্ষয়ক্ষতি বীমাকৃত বিপদের কারণেই ঘটেছে।
  • বীমাকারী ও বীমাসংস্থার মধ্যে ক্লেমের চুক্তি অনুযায়ী ক্লেম রাশি নির্ধারণ করা হয়।
  • পলিসি শর্তাবলিতে যেভাবে বিবৃত আছে সেই অনুযায়ী প্রদেয় ক্লেম থেকে উদ্বৃত্ত বাদ দেওয়া হবে।

পলিসির বিভিন্ন প্রকৃতি অনুযায়ী, নির্দিষ্ট কিছু বিষয়বস্তু ব্যক্তিগত পলিসির ক্ষেত্রে স্বতন্ত্র। উপরোক্ত ছাড়াও, নিচে তালিকাভুক্ত হলঃ ( দয়া করে মনে রাখুন উল্লিখিত কাগজপত্রগুলি ইঙ্গিতবাহী এবং ক্লেমের পরিস্থিতি অনুযায়ী, বীমা সংস্থা অতিরিক্ত কাগজপত্রের জন্য অনুরোধ জানাতে পারে)

মোটর বাহন (ব্যক্তিগত এবং দ্বিচাকা বিশিষ্ট) ক্লেম

মোটর পলিসির অধীন ক্লেম

  • তৃতীয় পক্ষ জড়িত দুর্ঘটনার সংবাদজ্ঞাপন ( আবশ্যকভাবে ক্লেম নাও হতে পারে) বীমাসংস্থাকে প্রতিবেদন করতে হবে।
  • বীমাকারী ক্ষতিপূরণ প্রদানে আগ্রহী হতেও পারেন, আদৌ দায়বদ্ধ না থাকলেও. অতএব পলিসির একটা স্পষ্ট শর্ত হল যে বীমাসংস্থার অনুমতি ছাড়া কোনও ক্লেম সম্মতি পাবে না বা মীমাংসায় পৌঁছবে না।
  • বৃহত্তর ক্লেমের ক্ষেত্রে, বীমাসংস্থা ফৌজদারি মামলা করতে পারে চালকের বিরুদ্ধে, যার ওপর নির্ভর করে ক্ষতিপূরণ দাবীর সিদ্ধান্ত জন আদালতে নেওয়া হতে পারে।
  • তৃতীয় পক্ষ জড়িত যেকোনো দুর্ঘটনা পুলিশে জ্ঞাপিত হওয়া প্রয়োজন। M.V. Act অনুযায়ী ক্ষতিগ্রস্ত তৃতীয় পক্ষ সরাসরি মোকদ্দমা করতে পারে বীমাসংস্থার বিরুদ্ধে।. অভিযোগে বর্ণিত দুর্ঘটনা যদি বীমাসংস্থাকে জ্ঞাপন না করা হয়, বীমা সংস্থা ইহাকে পলিসির শর্ত উল্লঙ্ঘন হিসেবে বিবেচনা করতে পারে।. এই পরিস্থিতিতে, বীমাসংস্থা যদি আদালতের রায় অনুযায়ী ক্ষতিপূরণ দিতে বাধ্য হয়, তবু তাদের একটা উপায় থাকে বীমাকারীর কাছ থেকে শর্ত উল্লঙ্ঘন করার জন্য ক্লেম রাশি পুনরুদ্ধার করার।

দুর্ঘটনার ক্ষেত্রে কি কি পদক্ষেপ নেওয়া উচিৎ

  • দুর্ঘটনার বিজ্ঞপ্তি ইফকো-টোকিও সাধারণ বীমার টোলফ্রি ১৮০০ ১০৩ ৫৪৯৯ নম্বরে নথিভুক্ত করতে হবে
  • যদি ক্ষতি বৃহত্তর হয়, বাহনটি অকুস্থল থেকে সরাবার আগে দুর্ঘটনার বিজ্ঞপ্তি দেওয়া যেতে পারে, যাতে বীমাসংস্থা ক্ষতির অকুস্থল পরিদর্শনের ব্যবস্থা করতে পারে।
  • তারপরে বাহনটিকে কারখানায় সরানো যেতে পারে, অনুমোদিত কারখানায় বাঞ্ছনীয়, মেরামতি খরচের আনুমানিক হিসেবের জন্য।
  • সম্পূর্ণ ক্লেম ফর্ম এবং মেরামতির অনুমান হিসাব পাওয়ার পর বিমা সংস্থা ক্ষতির বিস্তৃত তদারকি এবং মেরামত খরচ নিরূপণের ব্যবস্থা করবে।
  • বীমাসংস্থা নিশ্চিত করবে দুর্ঘটনার সময়ে যে ব্যক্তি বাহনটি চালাচ্ছিলেন তিনি অনুমোদনপ্রাপ্ত এবং এই বাহনটি সেটি যেটি খতিয়ানে বীমাকৃত হয়েছে।. শেষ পর্যন্ত, তারা নিবন্ধন প্রমাণপত্র এবং দুর্ঘটনার সময়ে যে চালক চালাচ্ছিলেন তার অনুমোদনপত্র যাচাই করবে।
  • উপরের কার্যপ্রণালী পরিপূরণ করার পর, মেরামতকারী মেরামত সম্পন্ন করার অনুমোদন পাবে।. বীমাসংস্থা গ্যারেজের সঙ্গে সরাসরি মেরামতের বিল মেটানোর দায়িত্বগ্রহণ করতে পারে অথবা পরে বীমাকারিকে পরিশোধ করতে পারে।

নিজস্ব ক্ষতি ক্লেমের ক্ষেত্রে কি করা উচিৎ?

  • দুর্ঘটনা ঘটলে যদি কেউ আহত হয় দয়া করে চিকিৎসার ব্যবস্থা করুন।. অন্যান্য সংশ্লিষ্ট বাহন/ ব্যক্তি যদি থাকে তাহলে বিবরণ লিখে নিন।. দয়া করে দুর্ঘটনার জন্য কোনও গাফিলতি স্বীকার করবেন না এবং ক্ষতিপূরণ যদি থাকে কাউকে সেই সংক্রান্ত কোনও অঙ্গীকার করবেন না।
  • আঘাত, মৃত্যু, তৃতীয় পক্ষের সম্পত্তির ক্ষতি, চুরি, ছিনতাই, ঘর ভাঙা এবং বিদ্বেষপূর্ণ কাজ, দাঙ্গা, হরতাল এবং উগ্রপন্থী কার্যকলাপের জন্য ক্ষতির ক্ষেত্রে তৎক্ষণাৎ সংশ্লিষ্ট পুলিশ থানায় জানানো প্রয়োজনীয়।
  • যদি দুর্ঘটনা তীব্র প্রকৃতির হয়, এবং বাহনটি সরানো সম্ভব না হয়, ঘটনাস্থলে বাহনটির যথোপযুক্ত সুরক্ষা নিশ্চিত করুন। দয়া করে দুর্ঘটনার পরে এবং প্রয়োজনীয় মেরামতির আগে ইঞ্জিনটি আরম্ভ করার বা বাহনটিকে চালানোর প্রচেষ্টা করবেন না।
  • বাহনটিকে আপনার পছন্দমতো নিকটবর্তী গ্যারেজে স্থানান্তর করুন এবং তাদের বলুন একটা পুঙ্খানুপুঙ্খ আনুমানিক হিসাব তৈরি করতে ( শ্রমিক চার্জ এবং মূল্যসমেত যন্ত্রাংশের তালিকা)
  • যতক্ষণ না পরিমাপকের দ্বারা বাহনটির পরিদর্শন/ মূল্যায়ন হচ্ছে দয়া করে বাহনের দুর্ঘটনাগ্রস্ত অবস্থার বদল বা মেরামত করবেন না. কোনও যন্ত্রাংশ বা আনুষঙ্গিক উপকরণ যাতে হারিয়ে না যায় তাও নিশ্চিত করুন।
  • যেকোনো দুর্ঘটনা অথবা ক্ষতি তৎক্ষণাৎ আমাদের জানান।
  • দয়া করে যথার্থ/ সম্পূর্ণ পূরণ করা ক্লেম ফর্ম আমাদের কাছে জমা করুন।
  • ক্যাশলেস সুবিধার জন্য দয়া করে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করুন যাতে মেরামতকারীর সরাসরি পেমেন্টের সুবিধা পেতে পারেন।
  • যাচাই এবং নির্বাচনের জন্য নথিপত্র জমা করতে হবে (একপ্রস্থ ফটোকপির সঙ্গে)
  • আসল বাহন নিবন্ধীকরণ বই (উপযুক্ততা প্রমাণপত্রের সঙ্গে, যদি উহা আলাদা নথি হয়)
  • আসল ড্রাইভিং লাইসেন্স
  • জমা করার নথিপত্র
  • পুলিশ অভিযোগের অনুলিপি (FIR)
  • মেরামতির আনুমানিক হিসাব
  • আপনার ক্লেম প্রক্রিয়াকরণের জন্য আমরা অতিরিক্ত নথিপত্র চাইতে পারি অথবা জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারি যা ক্লেমের ওপর নির্ভরশীল। দয়া করে এইগুলি জমা করার ব্যবস্থা করুন।
  • সমস্ত ক্ষয়ক্ষতি তদারক এবং মূল্যায়ন করা হবে একজন পরিমাপক/ নির্ধারকের মাধ্যমে এবং এই প্রক্রিয়ার পরেই ক্লেমের গ্রহণযোগ্যতা ও নিস্পত্তির উপায় নির্ধারিত হবে।

দয়া করে মনে রাখুনঃআপনি আমাদের সঠিক যোগাযোগের ( ক্লেম ফর্মে ঠিকানা/ টেলিফোন নং/ মেল আইডি) বিবরণ দিচ্ছেন তা নিশ্চিত করুন।যদি আপনি দুর্ঘটনা সম্বন্ধিত কোনও বিজ্ঞপ্তি বা তলব পেয়ে থাকেন (ফৌজদারি মামলা ছাড়া যদি কিছু) তাহলে যাচনাপত্রটি নিয়ে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করুন।

চুরি ক্লেমের জন্য কি করা উচি?

  • যদি আপনার গাড়ি চুরি হয়ে গিয়ে থাকে, তাহলে প্রথম কাজ হলো পুলিশে প্রতিবেদন নথিভুক্ত করা।
  • আপনার বীমাসংস্থাকে অবহিত করুন পুলিশ প্রতিবেদন নথিভুক্ত করার সঙ্গে সঙ্গেই, ইহা আমাদের সাহায্য করবে যদি আপনার গাড়ির সাহায্যে চোর অন্যদের কিছু ক্ষতি করে।. আরও মনে রাখুন, আপনার বীমা সংস্থা আপনার ক্লেম প্রক্রিয়াকরণ করবে না যদি আপনি পুলিশে প্রতিবেদন নথিভুক্ত না করেন।
  • যখন আপনি আপনার বীমা সংস্থাকে জ্ঞাপন করবেন, তখন তাদের FIR -এর সঙ্গে আপনার গাড়ির ঋণ/ ইজারা দেওয়ার সমস্ত বিবরণ দিন।
  • আপনার গাড়ির বর্ণনা, মাইলেজ, পরিষেবা নথি যদি থাকে তাও তাদের দিন। গাড়ির সঙ্গে চুরি যাওয়া ব্যক্তিগত জিনিসপত্রের তালিকাও জমা করুন।
  • আপনার RTO কে চুরির ব্যাপারে জানানোও গুরুত্বপূর্ণ।
  • আপনার ফিনান্সারকে সঙ্গে সঙ্গে চুরির বিষয়ে জ্ঞাপন করুন এবং তাদের বলুন বীমাসংস্থার সঙ্গে সরাসরি এই ব্যাপারে আলোচনা করতে। ইহা আপনার ক্লেম প্রক্রিয়াটিকে সহজসাধ্য করবে।
  • যদি পুলিশ বাহনটি পুনরুদ্ধার করে, আপনার বীমা সংস্থাকে সেই জানান।
  • যদি বাহনটি পুনরুদ্ধার হয়, বীমা সংস্থা আপনার পলিসির শর্তাবলী অনুযায়ী বাহনের ক্ষয়ক্ষতির ক্ষতিপূরণ করতে বাধ্য থাকবে এবং আপনার পলিসির অধীনে যদি কোনও চুরি হয়ে যাওয়া সামগ্রী থাকে বীমা সংস্থা ক্ষতিপূরণ করতে বাধ্য থাকবে
  • যদি বাহনটি পুনরুদ্ধার না হয়, পুলিশের অ-অনুসন্ধানযোগ্য শংসাপত্র ( NTC) দেওয়া উচিৎ এবং আদালত 173 Crpc ধারায় একটি চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেবে ।
  • যদি আপনি কোনও ঋণ নিয়ে থাকেন গাড়ি ক্রয় করার জন্য, বীমা সংস্থা সরাসরি ফিনান্সারের সঙ্গে রাশির নিস্পত্তি করবে। নিস্পত্তির মূল্যটি হয় বীমাকৃত ঘোষিত মূল্য (IDV)-এর ওপর। যদিও ব্যবহার এবং বাজার মুল্যের ভিত্তিতে ইহার পরিবর্তন হতে পারে।

PrintPrintEmail this PageEmail this Page

সারা বিশ্ব জুড়ে 24 ঘণ্টা সহযোগিতা পাবেন

আপনি বিদেশে থাকাকালীন যে কোনো জরুরি অবস্থায় সারা দিন-রাতে আপনাকে সহযোগিতা করতে, IFFCO-Tokio সাধারণ বিমা PHM Global-এর সঙ্গে গাঁট-ছড়া বেঁধেছে এবং তাদের ঠিকানা হল

প্যরামাউন্ট হেলথকেয়ার ম্যানেজমেন্ট প্রাইভেট লিমিটেড
ট্রাভেল হেলথ ডিপার্টমেন্ট
এলিট অটো হাউজ, প্রথম তলা,
এম. বসনজি রোড,
চাকালা, আন্ধেরি (পূঃ), 
মুম্বই - 400093 
Tel: 00 91 22 40004216 / 40004219
 টোল ফ্রি নম্বর: 1 866 978 5205(আমেরিকায়) 
ফ্যাক্স: 00 91 22 67021259 / 260
ইমেল ঠিকানা:  travelhealth@phmglobal.com
 

 শুধু IFFCO-Tokio-এর সাধারণ বিমার জন্য ব্যবহৃত হেল্পলাইন নম্বর - 0091 22 67515551

এর সাথে, আপনি যে দেশে যাচ্ছেন, তার প্রতি নির্ভর করে নিম্নে-লিখিত টোল ফ্রি নম্বরগুলি ব্যবহার করতে পারেন

 

মূল দেশ

আন্তর্জাতিক ব্যবহারের সঙ্কেত নম্বর

UIFN number

অস্ট্রেলিয়া 11 800-80008400
অস্ট্রিয়া 0 800-80008400
বেলজিয়াম 0 800-80008400
চীন 0 800-80008400
ডেনমার্ক 0 800-80008400
ফিনল্যান্ড 990 800-80008400
ফ্রান্স 0 800-80008400
জার্মানি 0 800-80008400
হংকং 1 800-80008400
হাঙ্গেরি 0 800-80008400
আয়ার্ল্যান্ড 0 800-80008400
ইজরায়েল 14 800-80008400
ইটালি 0 800-80008400
জাপান 001-010 800-80008400
জাপান 0033-010 800-80008400
জাপান 0061-010 800-80008400
জাপান 0041-010 800-80008400
দঃ কোরিয়া 1 800-80008400
দঃ কোরিয়া 2 800-80008400
মালয়েশিয়া 0 800-80008400
নেদারল্যান্ডস 0 800-80008400
নিউ জিল্যান্ড 0 800-80008400
নরওয়ে 0 800-80008400
ফিলিপাইন্স 0 800-80008400
পর্তুগাল 0 800-80008400
সিঙ্গাপুর 1 800-80008400
স্পেন 0 800-80008400
সুইডেন 0 800-80008400
সুইজারল্যান্ড 0 800-80008400
থাইল্যান্ড 1 800-80008400
যুক্তরাজ্য 0 800-80008400

মূল দেশ থেকে কোনো UIFN নম্বর ডায়ালের উপায়

আন্তর্জাতীয় ব্যবহার সঙ্কেত + UIFN নম্বর
যেমন, ITU UIFN নম্বর 800 80008400 হলে, যেভাবে এই নম্বরটি ডায়াল করতে হবে তা হল আন্তর্জাতীয় ব্যবহার সঙ্কেত + 800 8000 8400।
উদাহরণ: অস্ট্রেলিয়ার আন্তর্জাতীয় ব্যবহার সঙ্কেত হল 0011, অতএব উপরে লেখা নম্বরটি অস্ট্রেলিয়া থেকে ডায়াল করতে হলে 0011 800 8000 8400 এইভাবে করতে হবে

 

PrintPrintEmail this PageEmail this Page

ব্যক্তিগত দুর্ঘটনা জনিত দাবি

  • বিমাকারীকে তখনই বিজ্ঞপ্তি পাঠান
  • দুর্ঘটনায় মৃত্যু হলে, ক্যাপিটাল বীমা রাশি বিমা-কৃত ব্যক্তির আইনী উপায়ে মনোনীত ব্যক্তি/স্বত্বভোগীকে প্রদান করা হবে। কোনো কারণে বিমা-কৃত ব্যক্তি মনোনীত ব্যক্তির নাম স্থির না করে থাকলে, আদালতের কাছ থেকে সাকসেশন সারটিফিকেট এনে দাখিল করা জরুরি।

অন্যান্য দাবির ক্ষেত্রে, বিমাকারী হয়তো বিমাকৃত ব্যক্তিকে একজন বিশেষজ্ঞ ডাক্তার দ্বারা পরীক্ষা করিয়ে নিতে পারে অথবা প্রয়োজনে মেডিকেল বোর্ড-এর কাছে পাঠানোর জন্য সুপারিশ করতে পারে, এর জন্য প্রদেয় খরচ বিমাকারীই বহন করবে।

অগ্নি/ IAR বিমাপত্রের অধীনে কৃত দাবি

  • প্রথমে বিমাকৃত ব্যক্তি ক্ষতিপূরণ করার সমস্ত সম্ভাব্য পদক্ষেপ অবশ্যই করবে।
  • যত দ্রুত সম্ভব দমকল বাহিনীকে ডাকতে হবে।
  • কোনোকারণে - দাঙ্গায় ব্যস্ত জনসাধারণ, ধর্মঘটে ব্যস্ত শ্রমিক, বিদ্বেষ-পরায়ণতার বশে তৃতীয় পক্ষ দ্বারা ঘটিত ক্ষয়-ক্ষতির ফলে আগুন লেগে গেলে একটি পুলিশি অভিযোগ দায়ের করতে হবে।
  • যত দ্রুত সম্ভব, অবশ্যই 24 ঘণ্টার মধ্যে, বিমাকারীকে এ বিষয়ে জানাতে হবে
  • বিমাকারীর দ্বারা নিয়োজিত সমীক্ষককে প্রাসঙ্গিক তথ্যাদি দিয়ে সহযোগিতা করতে হবে।
  • সাইক্লোন, বন্যা এবং প্লাবনের ফলে ক্ষয়-ক্ষতির ক্ষেত্রে একটি আবহাওয়া প্রতিবেদন জমা দিতে হবে
  •  বিমাপত্র কোনো কারণে ‘পুনর্বহাল ভিত্তিক’ হয়ে থাকলে, ক্ষতিগ্রস্ত জিনিসটির মেরামতি/বদল করার পরে এই বাবদ খরচের রসিদ জমা করে দাবির আবেদন করলে তখনই দাবির নিষ্পত্তিকরণ করা হতে পারে।

সিঁধ কেটে চুরি সম্বন্ধীয় ক্ষতির দাবি / অর্থ বিমা / বিশ্বস্ততা

  • অবিলম্বে একটি পুলিশি অভিযোগ দায়ের করতে হবে এবং ওই জিনিসগুলি খুঁজে পাওয়া যায়নি, এই মর্মে একটি নন-ট্রেসেবেল সারটিফিকেট পুলিশের কাছ থেকে নিতে হবে।
  • বিমাকারীকে যত দ্রুত সম্ভব, তখনই বিজ্ঞপ্তি পাঠান
  • বিমাকারী হারিয়ে যাওয়া জিনিসের সঠিক মূল্য নির্ধারণ করে স্ট্যাম্পপেপারে লিখিত একটি দায়িত্ব-অঙ্গীকার পত্র দেওয়ার জন্য জোরাজুরি করতে চাইবে – চুরি যাওয়া সম্পত্তি খুঁজে পাওয়ার পর দাবি-কৃত অর্থ-পরিমাণ ফেরৎ দেবার জন্য প্রতিস্থাপন জনিত পত্রও লাগবে।
  • পুলিশের কাছ থেকে একটি চূড়ান্ত রিপোর্টও লিখিয়ে নেবেন।
  • ঘটনা ঘটার দিনই বিমাকৃত ব্যক্তি সমীক্ষককে ক্ষয়-ক্ষতি হয়ে যাওয়া জিনিসের সম্পূর্ণ হিসাব-পত্রের বই এবং রসিদ দিয়ে দেবেন।

যন্ত্রপাতি ভেঙে গেলে

  • বিমাকারীকে যত দ্রুত সম্ভব, তখনই বিজ্ঞপ্তি পাঠান
  • দাবি জনিত বিজ্ঞপ্তি এবং মেরামতির আনুমানিক খরচ সহ বিমাকারীকে পরিদর্শনের জন্য বিজ্ঞপ্তি পাঠাতে হবে।
  • আংশিক ক্ষতির ক্ষেত্রে, কোনো অবমূল্যায়ন ধার্য করা হয় না কিন্তু জিনিসগুলি এখনকার প্রতিস্থাপনযোগ্য মূল্য হিসাবে বিমার আওতায় না থাকলে, জিনিসগুলি অপর্যাপ্ত বিমাকৃত প্রকরণ হিসাবে বিবেচ্য হবে এবং দাবির পরিমাণ সেই অনুপাতে কমে যাবে। শুধুমাত্র সম্পূর্ণ ক্ষয়-ক্ষতির জনিত দাবির ক্ষেত্রেই অবমূল্যায়ন ধার্য করা হয়।
  • কোনো যন্ত্রের আংশিক ক্ষতির ক্ষেত্রে, (বিমা সংস্থার অনুমোদন সাপেক্ষে) ব্যবহারের আগে, এটি মেরামতি করিয়ে নেওয়া উচিত, তা না হলে আবার ক্ষতি হলে সেটি আর বিমার আওতাধীন থাকবে না।

ইলেকট্রনিক যন্ত্রাংশগুলি

  • বিমাকারীকে যত দ্রুত সম্ভব, তখনই বিজ্ঞপ্তি পাঠান।
  • দাবি জনিত বিজ্ঞপ্তি এবং মেরামতির আনুমানিক খরচ সহ বিমাকারীকে পরিদর্শনের জন্য বিজ্ঞপ্তি পাঠাতে হবে।
  • আংশিক ক্ষতির ক্ষেত্রে, যে যন্ত্রাংশগুলি সীমিত সময়ের পরে কর্ম-ক্ষমতাহীন হয়ে পড়ে, সেইগুলি ছাড়া অন্য যন্ত্রাংশ বদলে নিলে অবমূল্যায়ন ধার্য করার জন্য প্রদেয় অর্থ-পরিমাণে হ্রাস করা হবে না, কিন্তু কোনো জীর্ণোদ্ধার কৃত জিনিসের মূল্য অবশ্যই হিসাবের আওতায় আসবে।
  • কোনো যন্ত্রের আংশিক ক্ষতির ক্ষেত্রে, (বিমা সংস্থার অনুমোদন সাপেক্ষে) ব্যবহারের আগে, এটি মেরামতি করিয়ে নেওয়া উচিত তা না হলে আবার ক্ষতি হলে সেটি আর বিমার আওতাধীন থাকবে না।

পরিবহনকালে গৃহস্থালী পণ্য

  • পরিবহনকালে কোনো ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কায়, বাহকের কাছে খোলা অবস্থায় মাল সরবরাহ করে দেওয়ার জন্য জোর করা উচিত এবং তাদের কাছ থেকে শংসা পত্রও নিয়ে নেওয়া উচিত।
  • পরিবহনকালে কোনো ক্ষয়ক্ষতির ক্ষেত্রে, বাহকের কাছে নির্দিষ্ট সময়-সীমার মধ্যে পুনরুদ্ধারের অধিকার রক্ষায়, এক প্রকার অর্থকরী দাবি রুজু করা উচিত, যেটি ছাড়া, দাবির প্রক্রিয়াকরণ হয়তো স্বীকার করা হবে না।

সামুদ্রিক পরিবহনের দরুণ ঘটিত ক্ষতি

  • মূল ইনভয়েস এবং মোড়ককৃত দ্রব্যের তালিকা – এটি ইনভয়েসের অংশ হলে
  • পরিবহনকালে কোনো ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কায়, বাহকের কাছে খোলা অবস্থায় মাল সরবরাহ করে দেওয়ার জন্য জোর করা উচিত এবং তাদের কাছ থেকে শংসা পত্রও নিয়ে নেওয়া উচিত।
  • মূল লরি রসিদ (LR)/ ল্যাডিং-এর রসিদ (BL) – পরিবহনকালে যে পরিমাণ জিনিস ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বা হারিয়ে গেছে সেইগুলির মন্তব্য দ্বারা উপযুক্ততা প্রাপ্ত।
  • ঘোষিত বিমাপত্রের ক্ষেত্রে – চালানটি ঘোষিত হওয়া উচিত এবং সেটি বীমা কৃত রাশির সীমার মধ্যে থাকা উচিত।
  • পরিবহনকালে কোনো ক্ষয়ক্ষতির ক্ষেত্রে, মাল বাহকের কাছে নির্দিষ্ট সময়-সীমার মধ্যে পুনরুদ্ধারের অধিকার রক্ষায়, এক প্রকার অর্থকরী দাবি রুজু করা উচিত।
  • বাহকের কাছ থেকে ক্ষয়-ক্ষতি/ হ্রাস-প্রাপ্তির শংসাপত্র নিয়ে নিন।
  • ক্ষয়-ক্ষতির পরিমাণ এবং কারণ নির্ধারণে অবশ্যই একজন সমীক্ষক (উভয় পক্ষের সম্মতি ক্রমে বিমাকারী দ্বারা নিয়োজিত)নিয়োগ করতে হবে।

Download Motor Policy

Feedback